30 March 2017
g+ tw Chapaibarta Faceook Page
Chapaibarta.com


রাজশাহী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হলেন চাঁপাইনবাবগঞ্জের গর্বিত সন্তান মোহাম্মদ আলী সরকার

Published:  28 December 2016
রাজশাহী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হলেন চাঁপাইনবাবগঞ্জের গর্বিত সন্তান মোহাম্মদ আলী সরকার

বার্তা রিপোর্টঃ রাজশাহী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন আওয়ামী লীগের প্রবীণ নেতা মোহাম্মদ আলী সরকার। দলীয় সমর্থন না থাকলেও শুধু জনপ্রিয়তার ওপর ভর করে একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীকে বিশাল ব্যবধানে পরাজিত করলেন মোহাম্মদ আলী সরকার।

আনারস প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে তিনি পেয়েছেন ৭৪২ ভোট। আর তার প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগ সমর্থিত মাহবুব জামান ভুলু তালগাছ প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ৪১৫ ভোট। নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং অফিসার শহিদুল ইসলাম প্রামানিক মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে আনুষ্ঠানিকভাবে নির্বাচনের এই ফল ঘোষণা করেন।
তিনি জানান, নির্বাচনের ১৫টি ভোট কেন্দ্রের সবকটিতেই জয়ী হয়েছেন মোহাম্মদ আলী সরকার। এর মধ্যে গোদাগাড়ী উপজেলা পরিষদ অডিটরিয়াম কেন্দ্রে মোহাম্মদ আলী সরকারের আনারসে ভোট পড়েছে ৬২টি। এখানে মাহবুব জামান ভুলুর তালগাছে ভোট পড়েছে ৩২টি। গোদাগাড়ীর কাঁকনহাট ভোটকেন্দ্রে আনারস পেয়েছে ৬৭ ও তালগাছ পেয়েছে ২৪ ভোট।

এছাড়া বাঘায় উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস ৪২ ও তালগাছ ৩০, মোহনপুর উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস ৫৩ ও তালগাছ ২৮, তানোর উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস ৪৫ ও তালগাছ ৩৬ ভোট পেয়েছে।

অন্যদিকে রাজশাহী কলেজিয়েট স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্রে আনারস ৪৮ ও তালগাছ ২৯, পবা উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস ৫৪ ও তালগাছ ১২, পবার হাটরামচন্দ্রপুর কেন্দ্রে আনারস ৩৫ ও তালগাছ ৩০ ভোট পেয়েছে।

এদিকে বাগমারা উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস ৪৭ ও তালগাছ ৩৪, বাগমারার সাঁকোয়া স্কুল কেন্দ্রে আনারস ৪২ ও তালগাছ ৩৬ এবং বাইগাছা প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে আনারস ৫৪ ও তালগাছ ২৩ ভোট পেয়েছে।

চারঘাটের  ও তালগাছ পেয়েছে ২৪ ভোট। পুঠিয়ার বানেশ্বর ভোটকেন্দ্রে আনারস পেয়েছে ৫৩ ও তালগাছ পেয়েছে ২১ ভোট। দুর্গাপুর উতেথুলিয়া ভোট কেন্দ্রে আনারস পেয়েছে ৪২ ভোট। এখানে তালগাছ পেয়েছে ৩০ ভোট। পুঠিয়া উপজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস পেয়েছে ৪৯পজেলা পরিষদ কেন্দ্রে আনারস পেয়েছে ৪৮ এবং তালগাছ পেয়েছে ৩১ ভোট।

নির্বাচনে মোট ভোটার সংখ্যা ছিলেন এক হাজার ১৭১ জন। এর মধ্যে এক হাজার ১৫৫টি ভোট পড়ে। বুধবার সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। এই সময়ের মধ্যে কোথাও কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোটগ্রহণ হয়েছে। নির্বাচনও সুষ্ঠু হয়েছে। ভোট দিয়ে নির্বাচিত করার জন্য মোহাম্মদ আলী সরকার ভোটারদের অভিনন্দন জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, স্থানীয় সরকারের সকল পর্যায়ের জনপ্রতিনিধি এই ভোটারদের নিয়েই জেলা পরিষদ চালাবেন তিনি।

মোহাম্মদ আলী সরকার রাজশাহী চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি ছিলেন। এ ছাড়া তিনি ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআই ও সার্ক চেম্বারের পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এবার তিনি রাজশাহী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন।



সর্বশেষ খবর