গোদাগাড়ীতে টাকার লোভে মা-সহ ২ সন্তানকে ছুরিকাঘাত

বার্তা ডেস্কঃ প্রবাসী স্বামীর পাঠানো টাকা কাল হলো হাসিনা বেগমের। টাকার লোভে প্রতিবেশী আব্দুর রহমান আদু ডাক্তারের নাতি বিপ্লব আহমেদ চাকু দিয়ে এলোপাথাড়ী আঘাত করে আহত করে একই এলাকার হাসিনা বেগম (৩০), তার মেয়ে আফিয়া (১২) ও ছেলে আব্দুল্লাহ (৪) কে।

এলাকাবাসী আহতদের উদ্ধার করে চাঁপাইনবাবগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে এবং ঘাতক বিপ্লবকে গণপিটুনি দেয়।

এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, গত কিছুদিন আগে ঈদ উপলক্ষে হাসিনা বেগমের স্বামী আব্দুর রহমান ৬০ হাজার টাকা পাঠায় হাসিনার নিকট। সেই টাকার প্রতি কু-নজর পড়ে বখাটে ও মাদকাসক্ত বিপ্লবের। নানার বাড়ীতে থাকা নাতি বিপ্লব সেই টাকার লোভে ১০ জুন রাত ১০ টার দিকে হাসিনার বাড়িতে হানা দেয়। বাসায় ঢুকেই সে তার হাতের চাকু দিয়ে হাসিনা বেগমের ৭ম শ্রেণি পড়ুয়া কন্যা আফিয়ার ঘাড়ে আঘাত করে। কন্যা আফিয়ার চিৎকারে হাসিনা ছুটে আসলে বখাটে বিপ্লব হাসিনার পেটে চাকু ঢুকিয়ে জখম করে। তাতে সে ক্ষ্যান্ত হয়নি। মা মেয়েকে রক্তাক্ত জখম করে সে শিশু বাচ্চার পায়ে চাকু ঢুকিয়ে দেয়। আহতদের চিৎকারে এলাকাবাসী এসে ঘাতক বিপ্লবকে ধরে গনধোলাই দেয়।

গনধোলাইয়ের এক পর্যায়ে বিপ্লব পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসী অটো চার্জারে করে আহতদের চাঁপাইনবাবগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। আহতদের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় চাঁপাইনবাবগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালের দায়িত্বরত চিকিৎসক রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তাদের প্রেরণ করেন।

এব্যাপারে গোদাগাড়ী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম জানান, মামলা হয়েছে, ঘাতক বিপ্লবসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এই বিভাগের সর্বশেষ খবর